«» মূলমন্ত্রঃ : সত্যের পথে,জনগনের সেবায়,অপরাধ দমনে,শান্তিময় সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়ে" আমরা বাঙালি জাতীয় চেতনায় বিকশিত মহান মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতার স্বপক্ষে সত্য এবং ধর্মমতে বস্তুনিষ্ঠ, সৎ ও সাহসী সাংবাদিকতায় সর্বদা নিবেদিত। «»

স্বাস্থ্য খাত, ব্যাংক ও শেয়ারবাজার লুটেরাদের ধরতে সংসদীয় তদন্ত চান পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ

বৃহস্পতিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ৫:৪২ পূর্বাহ্ণ | 59 বার

স্বাস্থ্য খাত, ব্যাংক ও শেয়ারবাজার লুটেরাদের ধরতে সংসদীয় তদন্ত চান পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ
ফাইল ছবি

মহানন্দা নিউজ-



 

রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনীত ধন্যবাদ প্রস্তাবের আলোচনায় অংশ নিয়ে জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ বলেছেন, বাংলাদেশ থেকে অর্থ পাচার হয়ে যাচ্ছে। খেলাপি ঋণের শীর্ষে বাংলাদেশ। গত ৯ মাসে ঋণখেলাপি বেড়েছে। ৩০০ খেলাপি ঋণগ্রহণকারীর কাছে ৫০ হাজার কোটি টাকা চলে গেছে।

ব্যাংক পরিচালকরা ভাগাভাগি করে পৌনে ২ লাখ কোটি টাকা ঋণ নিয়েছেন। ব্যাংক ঋণের হাজার হাজার কোটি টাকা পাচার হয়েছে। ২০০ জনকে দেশে ফেরাতে চায় দুদক।

এ জন্য মানি লন্ডারিং আইন সংশোধনের দাবি জানান তিনি।

একই সঙ্গে তিনি স্বাস্থ্য খাত, ব্যাংক ও শেয়ারবাজার লুটেরাদের ধরতে তদন্ত কমিশন গঠন করার দাবি জানান।

পাশাপাশি স্বাস্থ্য খাতে দুর্নীতির জন্য সংসদের সিনিয়র সদস্যদের নিয়ে একটি সংসদীয় তদন্ত কমিটি গঠন করার দাবিও তোলেন তিনি। স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে একাদশ সংসদের ষষ্ঠ অধিবেশনে গতকাল রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনীত ধন্যবাদ প্রস্তাবের আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এসব দাবি জানান।

আলোচনায় আরও অংশ নেন সরকারি দলের হুইপ আতিউর রহমান আতিক, সাবেক মন্ত্রী আবুল কালাম আজাদ, বিএনপির গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ, সরকারি দলের নজরুল ইসলাম বাবু, খাদিজাতুল আনোয়ার প্রমুখ।

সুনামগঞ্জ-৪ আসন থেকে নির্বাচিত পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ স্বাস্থ্য খাতের অনিয়ম-দুর্নীতির চিত্র তুলে ধরে বলেন, স্বাস্থ্য সেক্টর নিজেই অসুস্থ। এটি দুর্নীতিতে নিমজ্জিত। এখানে হাসপাতালের একটি পর্দা কিনতে ব্যয় দেখানো হয় ৩৭ লাখ টাকা।

তিনি বলেন, সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে ৬২ জন ডাক্তার থাকার কথা। সেখানে ১৬ জন রয়েছেন। আছে শুধু ভবন। সরবরাহ করা হচ্ছে যন্ত্রপাতি, লাভবান হচ্ছেন ঠিকাদার। একই সঙ্গে তিনি সুনামগঞ্জে শিক্ষক সংকটের কথাও তুলে ধরেন। পাশাপাশি তিনি সাংবাদিকদের মত প্রকাশের পথ খোলা রাখার দাবিও জানান।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

অবশেষে বিয়ে করলেন গোদাগাড়ী উপজেলার সাবেক যুবলীগ নেতা শফিকুল সরকার

Development by: bdhostweb.com

চুরি করে নিউজ না করাই ভাল