«» মূলমন্ত্রঃ : সত্যের পথে,জনগনের সেবায়,অপরাধ দমনে,শান্তিময় সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়ে" আমরা বাঙালি জাতীয় চেতনায় বিকশিত মহান মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতার স্বপক্ষে সত্য এবং ধর্মমতে বস্তুনিষ্ঠ, সৎ ও সাহসী সাংবাদিকতায় সর্বদা নিবেদিত। «»

ঢাবিতে চালু হল জো-বাইক সেবা ‘ডিইউ চক্কর’

বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯ | ৪:৪৬ অপরাহ্ণ | 46 বার

ঢাবিতে চালু হল জো-বাইক সেবা ‘ডিইউ চক্কর’
ফাইল ছবি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) ক্যাম্পাসে চালু হল বহুল প্রতীক্ষিত জো-বাইক সেবা ‘ডিইউ চক্কর’। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) উদ্যোগে চালু হয় এ সেবা।

বুধবার বিকাল সোয়া ৩টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের (টিএসসি) পায়রা চত্বরে ভিসি অধ্যাপক ড. মো আখতারুজ্জামান আনুষ্ঠানিকভাবে এ সেবার উদ্বোধন করেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল। এছাড়া ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নুর, জিএস গোলাম রাব্বানী, পরিবহন সম্পাদক শামস-ঈ-নোমান, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক আরিফ ইবনে আলী, ডাকসু সদস্য ও সিনেট সদস্য তিলোত্তমা সিকদার, ডাকসু সদস্য তানভীর হাসান সৈকত, চিবল সাংমা, জোবাইক কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা মেহেদী রেজা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ডাকসুর উদ্যোগে ১০০টি বাইসাইকেল নিয়ে বুধবার এই জো বাইক সেবার আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু হয়েছে। এর আগে ৩০ সেপ্টেম্বর ২০-২৫ বাইসাইকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে আনা হয়েছিল।

‘কার্বনমুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস’ স্লোগানকে সামনে রেখে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে জো-বাইক সেবা চালু হয়েছে বলে জানান শামস-ঈ-নোমান।

জো-বাইক হচ্ছে স্মার্টফোনভিত্তিক নির্দিষ্ট অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে এক ধরনের বাইসাইকেল সেবা। এর মাধ্যমে ব্যবহারকারীকে তার স্মার্টফোনে নির্দিষ্ট অ্যাপসটি ডাউনলোড করতে হয় এবং প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে অ্যাকাউন্ট তৈরি করতে হয়।

তারপরে ব্যবহারকারী কিউ আর কোড স্ক্যান করে সাইকেলগুলো আনলক করে চালাতে পারে। এর জন্য নির্দিষ্ট পরিমাণে টাকা পরিশোধ করতে হয় গ্রাহককে।

অনুষ্ঠানে যোগ দিলেন গোলাম রাব্বানী : এদিকে চাঁদাবাজি ও অসাংগঠনিক কর্মকাণ্ডের কারণে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদকের পদ হারানোর এক মাস পর এই প্রথম ক্যাম্পাসে ডাকসুর এই অনুষ্ঠানে যোগ দিলেন জিএস গোলাম রাব্বানী।

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে উন্নয়ন প্রকল্প থেকে চাঁদা দাবি ও নানা অভিযোগ ওঠার পর গত ১৪ সেপ্টেম্বর ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকে রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও গোলাম রাব্বানীকে সরিয়ে দেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা।

ছাত্রলীগ থেকে সরিয়ে দেয়ার পর রাব্বানীকে ডাকসুর সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকেও সরিয়ে দেয়ার দাবি ওঠে। এরপরে কার্যত লোকচক্ষুর আড়ালে চলে যাওয়া রাব্বানী ২৬ সেপ্টেম্বর ডাকসুর কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকেও ছিলেন না।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

কবিতা- “স্কাউট আত্মকথা”

Development by: bdhostweb.com

চুরি করে নিউজ না করাই ভাল